ভাত খাওয়ার পর ভুলেও যে ৫ টি কাজ করবেন না - ABC Media BD

Breaking

Wednesday, July 29, 2020

ভাত খাওয়ার পর ভুলেও যে ৫ টি কাজ করবেন না

ভাত খাওয়ার পর ভুলেও যে ৫ টি কাজ করবেন না

আমরা জানি পৃথিবীতে হাজার হাজার মানুষ বসবাস করে বেশিরভাগ মানুষের প্রধান খাদ্য ভাত। এবং আমরা আমাদের দেহের পুষ্টি ঠিক রাখার জন্য আমরা বিভিন্ন ধরনের ফল খেয়ে থাকি।আমরা বেশির ভাগ দেখা যায় ভাত খাওয়ার পরেই আমরা যে কোন ফল খেয়ে থাকি। এবং আমরা যদি ভাত খাওয়ার পরপরই ফল খায় তাহলে আমাদের পেটে গ্যাস্টিকের সমস্যা হতে পারে। এজন্য আমরা ভাত খাওয়ার ১/২ থেকে দুই ঘন্টা আগে বা পরে ফল খাবো তাহলে আমাদের শরীরে কোন ধরনের রোগ আক্রান্ত করতে পারবে না চিকিৎসকরা স্বাস্থ্যরক্ষার জন্য ভাত খাওয়ার পরে ৫ টি কাজ করতে নিষেধ করেন নিচে এগুলো দেওয়া হলোঃ


দুপুরে ভাত খাওয়ার পর যে পাঁচটি কাজ ভুলেও করবেন না,ভাত খাওয়ার পর ভুলেও করবেন না যে কাজ গুলো,খাওয়ার পরে যে পাঁচটি কাজ কখনোই করবেন না,ভাত খাওয়ার পর যে পাঁচটি কাজ করবেন না,ভাত খাওয়ার পর যে পাঁচটি কাজ করবেন না !,ভাত খাওয়ার পর ভুলেও করবেন না,ভাত খাবার পর ভুলেও যে ৮ টি কাজ কখনোই করবেন না ।,ভাত খাওয়ার পর ভুলেও যে ৫ টি কাজ কখনও করবেন না,ভাত খাওয়ার পর যে ৮টি কাজ ভুলেও করবেন না,যে ৫টি কাজ ভাত খাওয়ার পরে করবেন না,ভাত খাওয়ার পর ভুলেও করবেন না এই কাজ,খাওয়ার পর ভুলেও যেসব কাজ করবেন না;
ভাত খাওয়ার পর ভুলেও যে ৫ টি কাজ করবেন না
প্রথমকাজঃ আমরা জানি প্রতিদিন নিদিষ্ট সময় শরীরের খুদা মেটানোর জন্য কমপক্ষে দিনে তিনবার আমারা ভাত খেয়ে থাকি। ভাত খাওয়ার পরেই কোন ফল খেলে গ্যাস্ট্রিকের প্রভাব দেখা দিতে পারে খাওয়ার কমপক্ষে এক থেকে দুই ঘন্টা আগে বা পরে ফল খেতে হবে। এবং তাহলে আমাদের শরীরে কোন ধরনের রোগ আক্রান্ত করতে পারবে না।


দৃতীয়কাজঃ বেশিরভাগ মানুষ সারাদিনে অনেক গুলো বিড়ি সিগারেট খায়। এবং সারাদিনে বিড়ি সিগারেট খেলে যে ক্ষতি হয়। ভাত খাওয়ার পরেই বিড়ি বা সিগারেট খেলে অনেক মারাত্মক রোগে আক্রান্ত হতে পারে। এবং ধুমপান স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর তাই সেজন্য আমরা ধুমপান করবো না।

তৃতীয়কাজঃ আমরা প্রতিদিন চা খেয়ে থাকি চায়ের মধ্যে অনেক বেশি ট্রনিক এসিড থাকে। খাদ্যের প্রোটিন পরিমানকে একশো গুন বাড়িয়ে দেয় এজন্য খাবারের হজমের শক্তি কমে যায়। এবং খাবার হজম হতে অনেক বেশি সময় লাগে। সেজন্য ভাত খাওয়ার পরে চা খেলে আমাদের দেহে নানা ধরনের রোগ দেখা দিতে পারে। তাই ভাত খাওয়ার পরে চা খাওয়া যাবে না।


চতুর্থকাজঃ অনেকেই আছে প্যান্ট পরার সাথে সাথে বেল্ট ব্যবহার করে। বেশিরভাগ মানুষ খাবার পরেই প্যান্টের বেল্ট কিংবা কোমড় ঢিলা করে দেয় এবং খুব সহজে আমাদের শরীরে মারাত্বক রোগ আক্রান্ত হতে পারে। যেমন পাকস্থলীর রেক্টাম থেকে মলদ্বর খাদ্যনালী নিম্নাংশের অংশ বেঁকে যায়। এবং পেঁচিয়ে যেতে পারে আবার বল্ক হয়ে যেতে পারে। এসব নানা ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। এবং ইন্টস্টািইনাল অবস্টাক বলা যায়। কেউ যদি খাবার বেশি খেতে চায় তাহলে খাওয়ার আগে থেকে প্যান্টের বেল্ট কিংবা কোমড় ঢিলা করে নিতে হবে। তাহলে আর কোন রোগে আক্রমণ করতে পারবে না।

পঞ্চমকাজঃ প্রতিদিন আমরা কমপক্ষে দিনে একবার গোসল করি। অনেকেই দেখা যায় যে ভাত খাওয়ার পরেই গোসল করে। আর ভাত খাওয়ার পরপরই যদি গোসল করে তাহলে আমাদের শরীরে রক্ত সঞ্চালন মাএা অনেক বেশি বেড়ে যায়। এজন্য পাকস্থলীর আশেপাশে রক্তের মাএা কমে যায়। ফলে পরিপাক তন্ত্র দূুর্বল করে ফেলে এবং খাদ্য হজম হতে অনেক বেশি সময় লাগে সেজন্য
আমাদের ভাত খাওয়ার পরপরই গোসল করা যাবে না। তাহলে মারাত্মক রোগ থেকে রক্ষা পাবো।


সর্বশেষ উপরের আলোচনা থেকে বুঝতে পারি যে প্রতিদিন ভাত খাওয়ার পরপরই কিছু নিয়ম নিতী মেনে চলতে হবে তাহলে আমাদের দেহে সহজে কোন রোগ আক্রমণ করতে পারবে না এবং চিকিৎসক বিজ্ঞানী মতে ভাত খাওয়ার ১/২ ঘন্টা আগে পরে ফল খেতে হবে। ভাত খাওয়ার পরপরই গোসল করা যাবে না। খাওয়ার পরপরই প্যান্টের বেল্ট ঢিলা করা যাবে না। এবং ভাত খাওয়ার পরপরই চা বিড়ি সিগারেট খাওয়া যাবে না এসব বিধি নিষেধ মেনে চলতে হবে। তাহলে আমাদের দেহে কোন রোগ সহজে আক্রমণ করতে পারবে না।

No comments:

Post a Comment