কি ভাবে উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন - ABC Media BD

Breaking

Tuesday, October 29, 2019

কি ভাবে উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন

কি ভাবে উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন
কি ভাবে উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন


বর্তমানে বিশ্বে সব চেয়ে বেশি ভিডিও দেখার ওয়েব সাইট হচ্ছে উইটিউব। উইটিউবে কেটি কেটি ভিডিও রয়েছে। এই ভিডিও গুলো উইটিউবে আফলোড করার জন্য একটি উইটিউব চ্যালেন খুলতে হয়। তার পরে সেই উইটিউব চ্যালেনে ভিডিও আফলোড করতে হয়। বর্তমানে আনলাইন ইনকামের সব চেয়ে সহজ উপয় হলো উইটিউব থেকে ইনকাম করা। আপনি একটি উইটিউব চ্যালেন তৈরি করে তাতে ভালো মানের ভিডিও আফলোড করে মাসে লক্ষ টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আজকে আমি আমার এই আর্টিকেলে আপনাদের বলবো কি ভাবে খুব সহজে একটি উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন। আপনি উইটিউব চ্যালেন তৈরি করার পরে ঘরে বসে ইনকাম করতে পারবেন।

উইটিউব চ্যালেন তৈরি করার আগে চলুন জেনে নেই উইটিউব কি বা কাকে বলে?


উইটিউব হচ্ছে গুগলের একটি সার্ভিস। আবার বলতে পারেন উইটিউব হচ্ছে গুগলের একটি ওয়েবসাইট। উইটিউব আমাদের কাছ থেকে কোনো টাকা না নিয়ে ফ্রিতে তাদের ওয়েবসাইট থেকে ভিডিও দেখতে দেয়। এই ভিডিও গুলো আপনি মোবাইল, কম্পিউটার, ল্যাপটপ ইত্যাদির মাধ্যমে দেখতে পাবেন। আপনি উইটিউবে সকল ধরনের ভিডিও দেখতে পাবেন। যেমন- ভিডিও গান, মুভি, নাটক, সিরিয়েল, ফ্যানি, টিউটোরিয়াল ভিডিও দেখতে পাবেন। এছাড়া আরো নানা প্রকার ভিডিও দেখতে পাবেন উইটিউবে। এছাড়া আপনি লাইভ (Live) খেলা-ধুলা, অনুষ্ঠান ইত্যাদিও দেখতে পাবেন।

অনেকের মনে প্রশ্ন আসতে পারে এই সব ভিডিও গুলো উইটিউবে কি ভাবে আসে বা করা আফলোড করে। এই ভিডিও গুলো আপনি আমি সবাই আফলোড করতে পারি। তার জন্য একটি উইটিউব চ্যালেন খুলতে হবে।

উইটিউব চ্যালেন হচ্ছে আমরা যেমন ফেসবুক, টুইটরে একাউন্ট তৈরি করার পরে সেখানে বিভিন্ন ছবি আফলোড করি ঠিক তেমনি যারা উইটিউব চ্যালেন তৈরি করছে তারা ঔ সকল ভিডিও গুলো আফলোড করে।

আপনার উইটিউব চ্যালেনের একটি নাম থাকবে। যেমন যেমন ফেসবুকের একটি Profile নাম থাকে। আপনি চ্যালেন তৈরি করার পরে ভিডিও আফলোড করলে সেই ভিডিও সবাই দেখতে পারবেন।

আমি আশা করছি উইটিউব কি সেটা আপনারা বুঝতে পারছেন। এবার আমি নিচে কি ভাবে উইটিউব চ্যালেন তৈরি করবেন সেটা জানাবো

উইটিউব চ্যালেন তৈরি করার নিয়ম


ধাপ-১

উইটিউবে একটি চ্যালেন তৈরি করতে হলে সর্ব প্রথমে প্রয়োজন জিমেইল একাউন্ট। কারণ উইটিউব এবং জিমেইল দুইটা গুগলের একটি ফ্রি সার্ভিস। গুগলে কোনো একাউন্ট তৈরি করতে হলে সর্ব প্রথমে প্রয়োজন হবে জিমেইল একাউন্ট।

আপনি যদি না জানেন কি ভাবে জিমেইল একাউন্ট তৈরি করতে হয় নিচের লিংকে ক্লিক করে জিমেইল তৈরির আর্টিকেলটি পড়ে নিন।

কি ভাবে জিমেইল একাউন্ট তৈরি করবো


ধাপ-২


আপনার কম্পিউটার বা ল্যাপটপ থেকে Youtube.com এ যাওয়ার পরে ডান পাশে উপরের দেখবেন SIGN IN রয়েছে। আপনি SIGN IN ক্লিক করুন।

ধাপ-৩

SIGN IN ক্লিক করার পরে Gmail Account এ লগইন করার জন্য আপনাকে বলা হবে। আপনি Gmail Account এবং Password দিয়ে লগইন করবেন। তার পর Next বাটুনে ক্লিক করবেন।

ধাপ-৪

Next বাটুনে ক্লিক করার পরে উইটিউব ড্যাশ বোডে আপনাকে নিয়ে যাবে। তার উপরে ডান পাশে উইটিউব Profile Icon দেখতে পাবেন। ঔ Icon ক্লিক করবেন।


ধাপ-৫

Profile Icon ক্লিক করার পরে কিছু Options দেখতে পাবেন। তার মধ্যে প্রথমে যে My Channel নামে একটা Options থাকবে তাতে ক্লিক করবেন।

ধাপ-৬

My Channel ক্লিক করার পরে একটি নতুন পেজ দেখতে পাবেন। সেখানে লেখা থাকবে Use YouTube as. আর নিচে দুইটা ছোট ছোট Box দেখতে পাবেন। ঔ Box এ আপনি উইটিউব চ্যালেন যে নামে তৈরি করবেন সেই নাম লিখে দিন। তার পর CREATE CHANNEL এ ক্লিক করুন।


ধাপ-৭

আপনার উইটিউব চ্যালেন তৈরি হয়ে গেছে। এবার আপনি চ্যালেন CUSTOMIZE CHANNEL ক্লিক করে Profile Picture, Cover Picture, Channel Art, Description, About লিখতে পারবেন।

কি ভাবে চ্যালেন Verify করবেন

চ্যালেন Verify না করলে আপনি ২ থেকে ৩ ভিডিও Upload করার পরে আর ভিডিও Upload করতে পারবেন না। তার জন্য উইটিউব চ্যালেন Verify করা খুব গুরুত্বপূর্ণ।

ধাপ-১

প্রথমে আপনি উইটিউব Profile Icon ক্লিক করার পরে Creator Studio নামে একটা Options দেখতে পাবেন।

ধাপ-২

Creator Studio এ ক্লিক করার পরে আপনি অনেক গুলো Optinos দেখতে পাবেন। তার মধ্যে বাম পাশে Channel নামে একটি Options থাকবে। Channel ক্লিক করার পরে নতুন একটি পেজে আপনার উইটিউব চ্যালেনের নাম দেখতে পাবেন এবং নিচে Verify নামে একটা Options দেখতে পাবেন।

ধাপ-৩

Verify লিংকে ক্লিক করার পরে Account Verification নামে একটা পেজ চলে আসবে। প্রথমে আপনি County তে ক্লিক করে আপনার দেশের নাম দিবেন। তার Text Me Options ক্লিক করবেন। তার পর আপনার মোবাইল নংবার দিবেন এবং Submit এ ক্লিক করবেন।

ধাপ-৪ 

Submit করার কিছুক্ষণ পরে আপনার ফোনে গুগল থেকে একটা SMS চলে আসবে। ঔ SMS এর নংবার দিয়ে Verification করে করে নিবেন। তার Continue বাটুনে ক্লিক করুন।
আপনার উইটিউব চ্যালেন এখন পুরোপুরি ভাবে Active হয়ে গেছে।

কি ভাবে Youtube Channel ভিডিও Upload করবেন


Youtube channel যাওয়ার পরে সবার উপরে দেখবেন ভিডিও ক্যামেরার মতো একটি Options দেখতে পাবেন। ঔ খানে ক্লিক করার পরে দুইটা Options দেখতে পাবেন। প্রথমে Upload Video এবং পরে Go Live. আপনি ভিডিও Upload করতে চাইলে Upload Video ক্লিক করবেন। আর যদি কোনো কিছু Live দিতে চান আপনার চ্যালেন এ তাহালে Go Live এ গিয়ে দিতে পারবেন।

আমার আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে পড়লে আপনি খুব সহজে YouTube Channel তৈরি করতে পারবেন। এবং প্রতি মাসে লক্ষ লক্ষ টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

কি ভাবে Youtube channel গুগল এডসেন্স যোগ করতে হয় এই নিয়ে আপনি আর একটি আর্টিকেল লিখবো।

আমার আর্টিকেলটি সম্পর্ন পড়ার জন্য আপনাকে ধন্যাবাদ। কোনো বিষয়ে বুঝতে না পারলে নিচে কমেন্ট করে জানাবেন। ইনশাল্লাহ উওর দিবো।

No comments:

Post a Comment